Menu

সর্বশেষ


বাংলাপ্রেস ডেস্ক: স্বাস্থ্যবিধি মেনে কম যাত্রী নিয়ে দ্বিতীয় দফায় বিভিন্ন রুটে আরও ১১ জোড়া আন্তঃনগর যাত্রীবাহী ট্রেন যুক্ত হয়েছে। প্রথম দফায় চালু হওয়া ৮ জোড়া ট্রেনসহ এখন চলাচল করা ট্রেনের সংখ্যা দাঁড়ালো ১৯ জোড়া।

বাংলাদেশ রেলওয়ের পরিচালক (জনসংযোগ) মোহাম্মদ সফিকুর রহমান জানান, এসব ট্রেন স্বাস্থ্যবিধি মেনে কম যাত্রী নিয়ে চলাচল করবে। নতুন যুক্ত হওয়া ট্রেনগুলোর মধ্যে বুধবার (৩ জুন) যেগুলোর সপ্তাহিক বন্ধ রয়েছে সেগুলো বৃহস্পতিবার থেকে চলবে। এর মধ্যে ৭ জোড়া ট্রেন ঢাকা থেকে বিভিন্ন জেলায় যাত্রী আনা নেওয়া করবে। বাকি ৪ জোড়া ট্রেন ঢাকার বাইরে চলাচল করবে।

পূর্ব ঘোষণা অনুযায়ী, বুধবার থেকে চালু হওয়া ১১ জোড়া আন্তঃনগর ট্রেন হলো, ঢাকা-দেওয়ানগঞ্জ বাজার রুটে তিস্তা এক্সপ্রেস, ঢাকা-বেনাপোল রুটে বেনাপোল এক্সপ্রেস, ঢাকা-চিলহাটি রুটের নীলসাগর এক্সপ্রেস, ঢাকা-কিশোরগঞ্জ রুটের কিশোরগঞ্জ এক্সপ্রেস, ঢাকা-নোয়াখালী রুটের উপকূল এক্সপ্রেস, ঢাকা-কুড়িগ্রাম রুটের কুড়িগ্রাম এক্সপ্রেস ও ঢাকা-চাঁদপুর রুটের ব্রহ্মপুত্র এক্সপ্রেস, খুলনা-চিলহাটি রুটের রূপসা এক্সপ্রেস, খুলনা-রাজশাহী রুটের কপোতাক্ষ এক্সপ্রেস, রাজশাহী-গোয়ালন্দঘাট রুটের মধুমতি এক্সপ্রেস, চট্টগ্রাম-চাঁদপুর রুটের মেঘনা এক্সপ্রেস।

এদিকে গত চারদিনের মতো আজও অর্ধেক যাত্রী নিয়ে চলাচল করছে সব ট্রেন। ট্রেনের অর্ধেক আসন হিসেবে সব টিকিট বিক্রি হচ্ছে অনলাইনে।

এখন পর্যন্ত সিডিউল বিপর্যয়ের কোনো ঘটনা ঘটেনি বলে রেল কর্তৃপক্ষ জানিয়েছে। সকাল সাড়ে ৭টায় কমলাপুর রেলস্টেশন থেকে দেওয়ানগঞ্জের উদ্দেশ্যে ছেড়ে যায় তিস্তা এক্সপ্রেস। বেলা ১১টার পর কিশোরগঞ্জ এক্সপ্রেস ছেড়ে যায় কিশোরগঞ্জের উদ্দেশে।

বিপি/কেজে