Menu

সর্বশেষ


বাংলাপ্রেস ডেস্ক :সফররত যুক্তরাষ্ট্রের সেন্ট্রাল ও সাউথ এশিয়া বিষয়ক সহকারী পররাষ্ট্র মন্ত্রী এলিস জি ওয়েল্স আজ বৃহস্পতিবার সকালে উখিয়া ও টেকনাফের রোহিঙ্গা ক্যাম্প পরির্দশন করেছেন। সূত্রঃ বাসস।

তিনি বৃহস্পতিবার সকাল সাড়ে ১০টার দিকে কক্সবাজার-টেকনাফ মেরিন ড্রাইভ সড়ক সংলগ্ন শামলাপুর রোহিঙ্গা শরনার্থী ক্যাম্প ঘুরে দেখেন। বাংলাদেশে নিযুক্ত মার্কিন রাষ্ট্রদূত রবার্ট মিলার তাঁর সঙ্গে ছিলেন।

এ ক্যাম্প পরিদর্শনের সময় এলিস জি ওয়েল্স ইউনিসেফের সহায়তায় রোহিঙ্গা শিশুদের জন্য কোডেক পরিচালিত একটি স্কুলে কিছু সময় কাটান। এ সময় তিনি ওই স্কুলের শিক্ষার্থীদের কথা মনযোগ দিয়ে শুনেন।

শরণার্থী, ত্রাণ ও প্রত্যাবাসন কমিশনারের প্রতিনিধি ও সিনিয়র সহকারী সচিব শামলাপুর ক্যাম্প ইনচার্জ পুলক কান্তি চক্রবর্তী বাসস’র প্রতিনিধিকে জানান,বৃহস্পতিবার সকাল সাড়ে ১০ টার দিকে যুক্তরাষ্ট্রের সহকারী পররাষ্ট্রমন্ত্রীসহ একটি প্রতিনিধি দল টেকনাফের শামলাপুর রোহিঙ্গা ক্যাম্পে পৌঁছান। এরপর রোহিঙ্গা শিশুদের স্কুল ঘুরে দেখেন।

এ সময় মার্কিন সহকারি পররাষ্ট্রমন্ত্রী রোহিঙ্গা শিশুদের কাছে জানতে চায়, কোন বিষয় পড়তে ভাল লাগে। জবাবে, কেউ ইংরেজি, কেউ গণিত, আবার অনেকে নিজ দেশের ভাষা বার্মিজ পড়তে বেশি ভাল লাগে বলে জানান।

ভবিষ্যতে কেউ ডাক্তার, কেউ শিক্ষক, কেউ সমাজ সেবক হতে চান-রোহিঙ্গা শিশুদের ভবিষ্যত স্বপ্নের কথা শুনে মার্কিন সহকারি পররাষ্ট্রমন্ত্রী উচ্ছ্বাস প্রকাশ করেন। সেখানে তিনি শিশুদের সঙ্গে কিছু সময় আড্ডায় মেতে উঠেন। বেলা সাড়ে ১১ টার দিকে মার্কিন সহকারী পররাষ্ট্রমন্ত্রী ও মার্কিন রাষ্ট্রদূত শামলাপুর ত্যাগ করেন।

এদিকে যুক্তরাষ্ট্রের মধ্য ও দক্ষিণ এশিয়া বিষয়ক সহকারী পরারাষ্ট্র মন্ত্রী এলিস জি ওয়েল্স এবং বাংলাদেশে মার্কিন রাষ্ট্রদূত রবার্ট মিলার বৃহস্পতিবার দুপুরে কক্সবাজারে শরণার্থী ত্রাণ ও প্রত্যাবাসন কমিশনার মোঃ মাহবুব আলম তালুকদারের সাথে বৈঠক করেন। ঘন্টাব্যাপি এই বৈঠকে রোহিঙ্গা সমস্যা নিয়ে আলোচনা করা হয়।

বৈঠকে রোহিঙ্গাদের বর্তমান পরিস্থিতি এবং সার্বিক অবস্থা মার্কিন সহকারি পররাষ্ট্র মন্ত্রীকে অবহিত করা হয়।
ইউএনসিআর’র বাংলাদেশ প্রধান মি. স্টিভ তাদের সাথে ছিলেন।

বিপি/আর এল