Home Uncategorized ‘আগের রাতে ব্যালট বাক্স পূরণ করা না হলে বিএনপির প্রার্থী জয়ী হবে’

‘আগের রাতে ব্যালট বাক্স পূরণ করা না হলে বিএনপির প্রার্থী জয়ী হবে’

by Dhaka Office

নিজস্ব প্রতিবেদক: গাজীপুরে যদি ন্যূনতম নিরপেক্ষ নির্বাচন হয়, তাহলে বিএনপির প্রার্থী বড় ব্যবধানে জয়ী হবেন বলে মন্তব্য করেছেন বিএনপির মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর। তিনি বলেন, যদি আগের রাতে ব্যালট বাক্স পূরণ করা না হয়, তাহলে বিএনপির প্রার্থী জয়ী হবেন। বিএনপির চেয়ারপারসন খালেদা জিয়ার গুলশানের রাজনৈতিক কার্যালয়ে আজ রোববার বিকেলে এক সাংবাদিক সম্মেলনে মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর এ মন্তব্য করেন।

মির্জা ফখরুল গাজীপুরের ভোটারদের সাংবিধানিক অধিকার প্রয়োগের আহ্বান জানান। তিনি বলেন, বিএনপির চাওয়া, ভোটাররা যেন ভোটকেন্দ্রে গিয়ে তাঁদের অধিকার পূরণ করেন। গাজীপুরের জনগণের উদ্দেশে মির্জা ফখরুল বলেন, ভোটাররা তাঁদের সাংবিধানিক অধিকার প্রদান করবেন। ভোটাররা সকাল থেকে ভোটকেন্দ্রে যাবেন, নিজেদের ভোটাধিকার প্রদান করবেন। তিনি বলেন, সরকারের লক্ষ্য গণতন্ত্রকে সমাহিত করা। নির্বাচন–ব্যবস্থাকে ব্যবসায় পরিণত করেছে সরকার। এ কারণে গাজীপুর নির্বাচনে সুষ্ঠু নির্বাচন হলে বিএনপির প্রার্থী জয়ী হবেন।

নির্বাচন কমিশনের সমালোচনা করে ফখরুল ইসলাম বলেন, এই নির্বাচন কমিশন সম্পূর্ণ অযোগ্য। কারণ যারা একটি সিটি নির্বাচন সুষ্ঠুভাবে পরিচালনা করতে পারছে না, তারা কীভাবে জাতীয় নির্বাচন সুষ্ঠুভাবে পরিচালনা করবে? নির্বাচন কমিশনের কাছে যা-ই অভিযোগ করা হয়, তারা এসব শুনেও শোনে না। বিএনপির প্রার্থী নির্বাচন কমিশনের কাছে অনেক অভিযোগ করেছেন, কিন্তু কিছুতেই কোনো কাজ হচ্ছে না।

গাজীপুরের পুলিশ সুপারের বিষয়ে অভিযোগ করে বিএনপির মহাসচিব ফখরুল বলেন, গাজীপুরের পুলিশ সুপার সবার কাছে পরিচিত ও পুরোপুরি ‘আওয়ামী লীগার’। তাঁর অতীত কর্মকাণ্ড সবার জানা আছে। বিএনপি আগেও পুলিশ সুপার হারুনকে এখান থেকে সরানোর দাবি জানিয়েছিল, এখনো তাঁকে না সরালে সুষ্ঠু নির্বাচন সম্ভব না। তিনি বলেন, গাজীপুরের এসপিকে সরানোর জন্য ইসির কাছে অনুরোধ করলে তাঁরা বলেন, তিনি (পুলিশ সুপার) তো অনেক দিন সেখানে আছেন—তাই তিনি অনেক কিছু জানেন। তিনি থাকলে নির্বাচন ভালো হবে। কিন্তু বাস্তবে ঘটে তার উল্টো।

ফখরুল ইসলাম আলমগীর বলেন, গাজীপুরের নির্বাচন যেন সুষ্ঠু, অবাধ ও নিরপেক্ষ হয়। ভোটাররা যেন সুন্দরভাবে ভোট দিতে পারেন। নির্বাচন কমিশন সে ব্যবস্থা গ্রহণ করবে। না হলে নির্বাচন কমিশনকে পদত্যাগ করতে হবে। তিনি আরও বলেন, রাষ্ট্রপতি বিএনপির সুপারিশ উপেক্ষা করে সম্পূর্ণ সরকারের পছন্দমতো লোক দিয়ে নির্বাচন কমিশন গঠন করেছেন। ইসির প্রধান আপাদমস্তক দলীয় লোক।

সাংবাদিক সম্মেলনে বিএনপির স্থায়ী কমিটির সদস্য আমীর খসরু মাহমুদ চৌধুরী, বিএনপির স্থায়ী কমিটির সদস্য আবদুল মঈন খান, জমির উদ্দিন সরকার, রফিকুল ইসলাম মিয়া, ভাইস চেয়ারম্যান শওকত মাহমুদ, সাংগঠনিক সম্পাদক ফজলুল হক মিলন, বিএনপির প্রচার সম্পাদক শহীদ উদ্দিন চৌধুরী প্রমুখ উপস্থিত ছিলেন।

বাংলাপ্রেস/এফএস

You may also like

Leave a Comment

কানেকটিকাট, যুক্তরাষ্ট্র থেকে প্রকাশিত বৃহত্তম বাংলা অনলাইন সংবাদপত্র

ফোন: +১-৮৬০-৯৭০-৭৫৭৫   ইমেইল: bpressusa@gmail.com
স্বত্ব © ২০১৫-২০২৩ বাংলা প্রেস | সম্পাদক ও প্রকাশক: ছাবেদ সাথী