Menu

সর্বশেষ
সর্বশেষ


বাংলাপ্রেস ডেস্ক : বগুড়ার শিবগঞ্জে এক গৃহবধূকে বাঁশের খুঁটির সঙ্গে বেঁধে পেটানোর অভিযোগে গ্রেফতার করা হয়েছে তার স্বামী রাফিকে। মাসখানেক ধরে কোনো খোঁজ-খবর না নেয়ায় শিল্পী বেগম নামের ওই গৃহবধূ শুক্রবার সকালে শ্বশুর বাড়িতে স্বামীর খোঁজে যান। এসময় ক্ষেতের ফসল নষ্ট করার অভিযোগ তাকে বেধড়ক মারপিট করেন স্বামী রাফি ও শ্বশুরবাড়ির লোকজন। ঘটনার দুদিন পার থানায় মামলা দায়ের হলে রোবববার রাতে রাফিকে গ্রেফতার করে পুলিশ।

নির্যাতনের শিকার শিল্পী বেগম জানান, আগের স্বামীর সঙ্গে বিয়ে-বিচ্ছেদের পর ৮/৯ মাস আগে উপজেলার অনন্তবালা গ্রামের শহীদুল ইসলামের ছেলে রাফি তাকে বিয়ে করেন। বিয়ের পর তারা সদর উপজেলার ঠেঙামারা এলাকার একটি ভাড়া বাড়িতে থাকতেন। মাসখানেক ধরে স্বামীর কোনো খোঁজ না পাওয়ায় শুক্রবার সকালে তিনি অনন্তবালা গ্রামে শ্বশুরবাড়িতে গেলে তার স্বামী ও তার পরিবারের সদস্যরা বাড়ির সামনে থাকা বাঁধাকপি ক্ষেতের মধ্যে খুঁটি গেড়ে তাকে বেঁধে ফেলেন। পরে তারা তাকে কয়েক ঘণ্টা ধরে নির্যাতন চালান। একপর্যায়ে তারা তাকে বাঁধাকপির ক্ষেত নষ্টের অভিযোগে গ্রাম পুলিশের মাধ্যমে উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তার কার্যালয়ে পাঠায়। উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা আলমগীর হোসেন শিল্পীর কাছে মূল ঘটনা জানার পর থানায় মামলা দায়েরের পরামর্শ দেন।

শিবগঞ্জ থানার অফিসার ইনচার্জ (ওসি) মিজানুর রহমান জানান, রোববার বিকেলে শিল্পীর বড় ভাই মামুন হোসেন রাফিসহ অজ্ঞাতনামা ৪/৫ জনকে আসামি করে থানায় মামলা করেন। এরইমধ্যে প্রধান আসামি রাফিকে গ্রেফতার করা হয়েছে। নির্যাতনের ভিডিও ফুটেজ পর্যবেক্ষণ করে বাকি আসামিদের গ্রেফতারে অভিযান চালানো হচ্ছে বলেও জানান তিনি।

বিপি/আর এল


Leave a Comments

avatar
  Subscribe  
Notify of